হায়দরাবাদ এফসির বিরুদ্ধে জিতে গেল মোহনবাগান

121
ATK Mohun Bagan

রবিবার হায়দরাবাদ এফসির বিরুদ্ধে মাঠের নামার কয়েকদিন আগে ATK মোহনবাগান (ATK Mohun Bagan) টুইট করে ভক্তদের বলেছিল,প্রিয় দলের ওপর আস্থা রাখতে।এদিন যুবভারতী ক্রীড়াঙ্গনে ভক্তদের ভালবাসাকে সম্মান জানিয়ে চলতি ইন্ডিয়ান সুপার লিগের(ISL) টপার হায়দরাবাদ এফসিকে হারিয়ে দিল সবুজ মেরুন বিগ্রেড। হুগো বাউমাসের করা গোলে ১-০ তে হেরে গেল নিজামর্সরা।

এদিন হায়দরাবাদ এফসির বিরুদ্ধে যুবভারতী ক্রীড়াঙ্গনে জনি কাউকোর অনুপস্থিতিতে ম্যাচের স্কোরার হুগো বাউমাসকে সবুজ মেরুন জার্সি গায়ে ওয়ার্ক লোড নিতে দেখা গিয়েছে।ভক্তরা বাউমাসের অল রাউন্ড পারফরম্যান্স দেখে খুবই খুশি যখন তারা স্টেডিয়াম থেকে বেরিয়ে আসছিল হুগো হুগো স্লোগান সঙ্গে নিয়ে।

ম্যাচের ১১ মিনিটে আশিক কুরুনিয়ানের পাস বক্সের ডান দিক বরাবর ছ’গজ দূরত্ব থেকে হুগো বাউমাসের ডান পায়ের শট হায়দরাবাদের জালে জড়াতেই ১-০ গোলের লিড নেয় ATKমোহনবাগান। প্রথমার্ধে হায়দরাবাদ এফসি এবং মেরিনার্সদের মধ্যে জোরদার বল দখলের লড়াই দেখা গিয়েছে।দু’দলই গোলের একাধিক সুযোগ পেলেও তা কাজে লাগাতে পারেনি।গোলের ওই হাফ চান্সগুলো জালে জড়ালে এই ম্যাচের রেজাল্ট অন্যরকম হতে পারতো।

তবে জয়ের এই আনন্দের মাঝে ATKমোহনবাগান শিবিরে অস্বস্তির কাটা রয়ে যাচ্ছে। খেলার প্রথমার্ধের প্রায় শেষ দিকে ৪৫ মিনিটে মনবীর সিং চোট পেয়ে মাঠ ছাড়ে এবং পরিবর্ত খেলোয়াড় হিসেবে কিয়ান নাসিরি গেম শুরু করে৷

প্রথমার্ধে দু’দলের মধ্যে হাড্ডাহাডি লড়াই হলেও খেলার দ্বিতীয়ার্ধে মেরিনার্সরা মাঠ জুড়ে খেলতে থাকে।হায়দরাবাদের ডিপ ডিফেন্সে বল পায়ে লিস্টন কোলাসো, শুভাশিস বোস,কিয়ান নাসিরিরা গোলের মুখ বারে বারে খোলার চেষ্টা করলেও ব্যর্থ হতে হয়।অন্যদিকে,খেলার শুরু থেকেই ওগবেচে বেশ কয়েকবার সাংঘাতিক মুভ করে মেরিনার্স ক্যাম্প লক্ষ্য করে যদিও তা কাজে আসেনি।খেলার শেষের দিকে ওগবেচে, সাহিল তাভোরা, জাভি সবুজ মেরুন বিগ্রেডের ডিফেন্সে চাপ বাড়ানোর জন্য মুভমেন্ট করলেও তাতে কাজের কাজ কিছুই করতে পারেনি মানলো মার্কেজের ছেলেরা।

যুবভারতীতে হায়দরাবাদ এফসিকে হারানোর ফলে ISL পয়েন্ট টেবলে ATKমোহনবাগান ছয় নম্বর থেকে চার নম্বরে উঠে আসলো। আর মেরিনার্সদের বিরুদ্ধে হেরে যাওয়াতে হায়দরাবাদ এফসি লিগ টপারের আসন খুইয়ে দ্বিতীয় স্থানে নেমে আসলো, এখন লিগ টপার মুম্বই সিটি এফসি ১৮ পয়েন্ট নিয়ে।হায়দরাবাদ ১৬,ওড়িশা এফসি ১৫ এবং ATK মোহনবাগান ৭ ম্যাচ খেলে ১৩ পয়েন্ট। মুম্বই এবং হায়দরাবাদ দু’দলই প্রতীম কোটালদের থেকে এক ম্যাচ বেশি খেলেছে।