বিনিয়োগ করুন এই খাতে, আগামী দিনে বৃহৎ পরিমান রিটার্ন আসবে এখান থেকেই

শেয়ার বাজারে প্রতি মুহূর্তে বিভিন্ন খাতের উপর বেশি বা কম রিটার্ন আসে। সেই কারণেই শেয়ার বাজারে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে উঠে এসেছে এফএমসিজি এবং ফার্মা খাত। এই…

share-market

শেয়ার বাজারে প্রতি মুহূর্তে বিভিন্ন খাতের উপর বেশি বা কম রিটার্ন আসে। সেই কারণেই শেয়ার বাজারে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে উঠে এসেছে এফএমসিজি এবং ফার্মা খাত। এই পরিস্থিতিতে একাধিক বিশেষজ্ঞেরাও জানিয়েছেন এই দুটি খাতে খুব ভালো বিনিয়োগের সুযোগ রয়েছে। রয়েছে আকর্ষণীয় রিটার্ন আসার সম্ভাবনাও। 

তদের মতে শক্তির খাতে বিনিয়োগের দুর্দান্ত সুযোগ রয়েছে। আগামী দিনে এই খাতটির মধ্যে সেরা পারফর্ম্যান্স লক্ষ্যণীয় হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। আপনাকে এই খাতটিকে একটু ভালোভাবে খতিয়ে দেখতে দেখতে হবে। তাহলেই বিনিয়োগের সুযোগ খুঁজে পাওয়া সম্ভব। এই খাতের সমস্ত কোম্পানির স্টক থেকেই যে দুর্দান্ত রিটার্ন মিলতে পারে সেই বিষয়টি উল্লেখ করা ভুল। তবে, এই খাতটিতে  আগামী পাঁচ থেকে দশ বছরের মেয়াদে শক্তি খাতের ক্ষেত্রে  একটি দুর্দান্ত বৃদ্ধি লক্ষ্য করা যেতে পারে। 

   

তাপবিদ্যুৎ হোক কিংবা পুনর্নবীকরণযোগ্য শক্তি… যে কোন উৎস থেকেই হোক না কেন আমাদের বিদ্যুৎ দরকার। কারণ, বিদ্যুতের চাহিদা ক্রমবর্ধমান আকার ধারণ করেছে। বিশ্ব উষ্ণায়নের কারণে সারা বিশ্বে বিপুল পরিমাণে বিদ্যুতের চাহিদা লক্ষ্যণীয় হচ্ছে। এপ্রিল ও মে মাসের শুরুতে দেশের একাধিক রাজ্যে তাপমাত্রা 46 থেকে 48 ডিগ্রি পর্যন্ত পৌঁছে গিয়েছে। আগামী দিনে এই তাপমাত্রা আরও বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সেই কারণেই পাওয়ার আগামী দিনে একটি খাত হিসাবে দুর্দান্ত পারফর্ম করতে পারে। এই সেক্টর প্রচুর বিনিয়োগের সুযোগ আসবে।

শক্তি খাতে বিনিয়োগ করার ক্ষেত্রে বিনিয়োগকারীদের ভালো হোমওয়ার্ক করতে হবে। সমস্ত বিষয় যাচাই করে নিতে হবে। এই খাতের একাধিক স্টক আন্ডারভ্যালুড অবস্থায় রয়েছে। গত তিন চার বছরে এই খাত থেকে প্রচুর রিটার্ন এসেছে। সেই কারণে বিনিয়োগকারী হিসাবে এই খাতে আপনাকে ধৈর্য ও প্রত্যাশা দুটিই রাখতে হবে। সেই সমস্ত স্টকের খোঁজ করুন যেগুলি যুক্তিসঙ্গত রিটার্ন এনে দিতে পারে। গত তিন বছরে এই খাতে যে ধরনের দুর্দান্ত পারফর্ম্যান্স লক্ষ্যণীয় হয়েছে, আগামী তিন বছরেও সেই বিষয়টির পুনরাবৃত্তি হতে পারে। সেই সম্ভাবনাই লক্ষ্য করা যাচ্ছে।