Gujarat Election:মোদীর মান রাখতে মরিয়া বিজেপি, দু দফায় ভোট গুজরাটে

25

গুজরাট বিধানসভা ভোট(Gujarat election) নিয়ে কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী তেমন বিচলিত নন। তিনি নজর করেছেন লোকসভা নির্বাচনকে। তাঁর ভারত জোড়ো যাত্রায় জনতার ঢল নামছে। এরই মাঝে কংগ্রেসের সভাপতি পদে দু দশক পর এসেছেন অ-গান্ধী পদবীভুক্ত মল্লিকার্জুন খাড়গে। তীব্র ঘাত প্রতিঘাতের মধ্যে দিয়ে কংগ্রেস চলেছে তবে গুজরাট থেকে মুখ ফিরিয়ে। রাজনৈতিক বিশ্লেষণ বলছে, তেমন কিছু হবে না গুজরাটে। এ রাজ্যে কিছু আসন প্রাপ্তির সংখ্যা পরিবর্তন হলেও ক্ষমতায় থাকছে বিজেপি।

গুজরাট বিধানসভার নির্বাচন নির্ঘন্ট জারি হতেই বিরোধী দল কংগ্রেসের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন, তারা কি হাল ছেড়ে দিল? কংগ্রেসের সভাপতি খাড়গের দাবি, ভোটে পরিবর্তন হবে গুজরাটে জয়ী হবে কংগ্রেস। আর সরকারে থাকা বিজেপি মরিয়া মোদীর মান রা়খতে। নিজ রাজ্যে চুটিয়ে প্রচার করছেন মোদী।

  • ১৮২ আসনের গুজরাট বিধানসভার দু’দফায় ভোট
  • প্রথম দফা ভোট ১ ডিসেম্বর
  • দ্বিতীয় দফায় ভোট ৫ ডিসেম্বর
  • ভোটগণনা হবে ৮ ডিসেম্বর

নির্বাচন কমিশন থেকে জারি হয়েছে নির্বাচনী আচরণ বিধি। প্রবল আর্থিক সংকট ও বেকারত্ব সংকটের মুখে ভারত। বিজেপি নেতৃত্বে চলা এনডিএ আমলে দেশের এই করুণ ছবি ধরা পড়েছে বিভিন্ন সমীক্ষায়। তাদের কয়েকটি বিশ্বপ্রসিদ্ধ সংস্থার তৈরি। তবে মোদী সরকারের দাবি, এ সব রিপোর্টে দেশের উন্নয়ন বাস্তবতা ঢাকা দেওয়ার চেষ্টা চলছে। এদিকে আন্তর্জাতিক মুদ্রা বিনিময় হারের সাম্প্রতিক যে হার এসেছে তাতে ভারতীয় মুদ্রা স্বাধীনতার পর সবথেকে নিম্ন মানে গিয়ে ঠেকেছে।

এসব রিপোর্টের আড়ালে গুজরাটের রাজনৈতিক বাস্তবতা হলো, বিরোধী দল হলেও কংগ্রেসের প্রচার তেমন নেই। তবে আম আদমি পার্টি নেমেছে। গুজরাট জুড়ে প্রচার করছেন আপ প্রধান তথা দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী কেজরিওয়াল। দিল্লির পর পাঞ্জাব দখল করেছে আপ। কংগ্রেসের হাত থেকে পাঞ্জাব ছিনিয়ে নজির গড়েছে আম আদমি পার্টি। জানা যাচ্ছে, আপের লক্ষ্য গুজরাটে বিরোধী দলের ভূমিকা নেওয়া।

তবে আপ দলের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তারা বিজেপির বিরোধী ভোট কেটে মোদীকে সুবিধা করতেই গুজরাটে নেমেছে। অভিযোগ, আপ বকলমে সংঘ পরিবার (RSS) এক রাজনৈতিক কূটচালে তৈরি দল। প্রাক্তন আপ নেতাদের দাবি, কেজরিওয়ালকে দিয়ে যেখানে বিজেপি বিরোধী ভোট কাটানোর খেলা করে সংঘ পরিবার। 

গুজরাটে কংগ্রেসের অন্যতম ঘু়ঁটি জিগনেশ মেভানি তীব্র প্রচার শুরু করেছেন। বিশ্লেষণে উঠে আসছে জিগনেশের নো ওয়াটার নো ভোট কর্মসূচিতে বিজেপি ধাক্কা খাচ্ছে গ্রামাঞ্চলে। আর বিজেপির দাবি, দেশে সর্বপ্রথম হর ঘর জল (প্রতি ঘরে জল) কর্মসূচি বাস্তবায়িত হয়েছে গুজরাটে।

তবে দলগতভাবে কংগ্রেসের ভোট যুদ্ধ তেমন নেই। বিশ্লেষণে উঠে আসছে এখানেই গুজরাটের লড়াইয়ে মোদী কয়েক কদম এগিয়ে। তবে তাঁকে ও বিজেপিকে তাড়া করছে মোরবি শহরের ভয়াবহ সেতু বিপর্যয়ে শতাধিক মৃত্যুর ঘটনা। অভিযোগ, রাজনৈতিক প্রচার পেতে সেই সেতু তড়িঘড়ি সারাই করে খুলে দেওয়া হয় মোদীকে খুশি করার জন্য। মোরবি এর পরেই হয় মৃত্যুপুরী।

গুজরাটে ভোট। বিজেপির ঘাঁটিতে পরীক্ষা দেবেন মোদী।

(সব খবর, সঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে পান। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram এবং Facebook পেজ)