হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে প্রাক্তন নিউজিল্যান্ড তারকা

নিউজ ডেস্ক: কয়েকমাস আগেই হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েছিলেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। পরপর দু’বার হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন তিনি, হয়েছিল অস্ত্রোপচারও। বিভিন্ন মহলে…

নিউজ ডেস্ক: কয়েকমাস আগেই হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েছিলেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। পরপর দু’বার হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন তিনি, হয়েছিল অস্ত্রোপচারও। বিভিন্ন মহলে প্রশ্ন উঠেছিল একজন খেলোয়াড় তাঁর শারীরিক সক্ষমতার শীর্ষে থাকেন।

আরও পড়ুন এবারে রান্নার মসলায় কমবে ওজন, প্রতিদিন রান্নায় ব্যবহার করুন এই ৬ টি মশলা

   

৪৯ বছর বয়সী সৌরভ খেলা ছাড়লেও রীতিমতো ফিটনেস ফ্রিক। তাঁর কোনও আগাম শারীরিক সমস্যা ছাড়াই হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ায় চিন্তায় পড়েছিল সকলে। তারপরেই ইউরো কাপ চলাকালীন মাঠেই হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে লুটিয়ে পড়েছিলেন ডেনমার্কের খেলোয়াড় এরিকসেন।

আরও পড়ুন অভাবের সংসার: পার্কিং অ্যাটেনডেন্টের কাজ করছেন বক্সিংয়ে জাতীয় চ্যাম্পিয়ন রিতু

এবার হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হলেন নিউজিল্যান্ডের প্রাক্তন অলরাউন্ডার ক্রিস কেয়ার্ন্স। গত সপ্তাহে ক্যানবেরায় তাঁর হৃদযন্ত্রের মূল ধমনীতে সমস্যা দেখা দিয়েছিল। তারপর থেকেই তিনি লাইফ সাপোর্ট ইউনিটে রয়েছেন। ইতিমধ্যেই বেশ কয়েকটা অপারেশন হয়ে গেলেও চিকিৎসায় বিশেষ সাড়া দিচ্ছেন না তিনি।

Report: Ex-Black Caps all-rounder Chris Cairns on life support

আরও পড়ুন অভাবের সংসারে হাল ধরতে সবজি বিক্রি করছেন ভারতের বিশ্বকাপজয়ী ক্রিকেটার

৫১ বছর বয়সি এই ক্রিকেটার নিউজিল্যান্ডের প্রাক্তন অলরাউন্ডার ১৯৮৯ থেকে ২০০৬ সালের মধ্যে নিউজিল্যান্ডের হয়ে ৬২ টেস্ট ম্যাচ, ২১৫টি একদিনের ম্যাচ এবং জোড়া টি-২০ ম্যাচ খেলেছেন।

আরও পড়ুন ভারতের সবচেয়ে বড় পতিতালয়ের সঙ্গেও জড়িয়ে রয়েছে ঠাকুরবাড়ির নাম

টেস্ট এবং ওডিআই, দুটি বিভাগেই ২০০-এর ওপর উইকেটের মালিক তিনি। মিডল অর্ডারে ব্যাট করে পাঁচদিনের খেলায় তাঁর সংগ্রহ ৩,৩২০ রান। ওডিআই’তে করেছেন ৫,৯৫০ রান।

আরও পড়ুন অভাবে বন্ধ স্বপ্ন দেখা, অলিম্পিকে মশাল হাতে দৌড়ানো পিঙ্কি এখন চা-বাগানের শ্রমিক

বহুদিন ধরেই স্ত্রী-সন্তানদের নিয়ে ক্যানবেরায় বসবাস করছেন কেয়ার্ন্স। সেখানে স্মার্টস্পোর্টস নামে একটি সংস্থার মুখ্য কার্যনির্বাহী পদে ছিলেন তিনি। প্রাক্তন এই ক্রিকেটারের বাবা ছিলেন নিউজিল্যান্ডের প্রবাদপ্রতিম খেলোয়াড়, ল্যান্স কেয়ার্ন্স।