Manik bhattacharya: মানিক-ঘনিষ্ঠদের অ্যাকাউন্টে লেনদেন ৮০ কোটির

27
Manik Bhattacharya

রাজ্যে শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতি মামলার তদন্তে তৎপর হতেই প্রাথমিক শিক্ষক পদে নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় মানিক ভট্টাচার্যকে (Manik Bhattacharya) গ্রেফতার করে ইডি। গ্রেফতারের পর থেকেই তদন্তে নেমে ইডির নজরে আসে মানিক ঘনিষ্ঠ তাপস মন্ডল ও একাধিক ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের তথ্য। ইডি সূত্রে খবর, ইতিমধ্যেই মানিক ভট্টাচার্য ও তার পরিবার, ঘনিষ্ঠদের মিলিয়ে ৫০ টি ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের লেনদেনের হদিশ মিলেছে। ওই ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টগুলি থেকে প্রায় ৮০ কোটি টাকার লেনদেনের হদিশও পেয়েছেন তদন্তকারী অফিসাররা। কোথা থেকে এত টাকা এলো, কেন এতগুলো টাকা লেনদেন,কোথায় বা গেল সেই টাকা? খোঁজ শুরু করেছে ইডি। 

ইডি সূত্রে খবর, মানিকের বিরুদ্ধে তদন্ত করতে নেমে একাধিক ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের হদিশ পেয়েছে ইডি। এর মধ্যে বেনামে একাধিক অ্যাকাউন্ট খোলা হয়েছে। এমনকি কখনও ভুয়ো তথ্য ব্যবহার করা হয়েছে, কখনও ব্যবহার করা হয়েছে মৃত ব্যক্তির তথ্যও৷ দুর্নীতি থেকে বাঁচতেই সেই সমস্ত ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টগুলিকে ব্যবহার করে ঘুরপথে টাকা পকেটে পুড়তেন মানিক। 

তদন্তকারী সংস্থার প্রশ্ন, এই বিপুল অঙ্কের টাকা কোথায় যেত? কারা যুক্ত রয়েছেন এর সঙ্গে? মানিক এই টাকা দিয়ে আর কোনও সম্পত্তি কিনেছে কি না খোঁজ শুরু করেছে ইডি। পুরো বিষয়টি যে আর্থিক প্রতারণার তা একেবারেই স্পষ্ট৷ এখন এই আর্থিক প্রতারণার শিকার কীভাবে চাকরি প্রার্থীরা হয়েছেন? তা খোঁজ শুরু হয়েছে। 

ইডি সূত্রে খবর, মানিক ভট্টাচার্যকে গ্রেফতারের পর তার কাছ থেকে যে সমস্ত ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট পাওয়া গেছে, সেই সমস্ত ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের তথ্য খতিয়ে দেখতে সমস্ত ব্যাঙ্কে উপস্থিত হচ্ছনে ইডি আধিকারিকরা৷ সমস্ত তথ্য খতিয়ে দেখেই আগামী দিনে বিরাট পদক্ষেপ নিতে চায় ইডি।

(সব খবর, সঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে পান। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram এবং Facebook পেজ)