Malda: মাদ্রাসা নির্বাচনে মালদহে শূন্য তৃণমূল, জয়ী বাম-কংগ্রেস

ভোট ঘিরে দিনভর উত্তেজনা। ছাপ্পা ভোটের অভিযোগ। দিন শেষে তৃণমূল ফিরল খালি হাতে।

179

মাদ্রাসা ভোটেও ছাপ্পাবাজির অভিযোগ উঠল তৃণমূলের বিরুদ্ধে৷ মালদহের (Malda) চাঁচল-১ ব্লকের নয়াটুলি মহানন্দপুর হাইমাদ্রাসা ও রতুয়া-২ ব্লকের জিএসএ হাইমাদ্রাসায় পরিচালন সমিতির নির্বাচন হয়েছে৷

সেই নির্বাচনে ছাপ্পাবাজির অভিযোগ রাজ্যের শাসক দলের বিরুদ্ধে। ছাপ্পা ভোটের অভিযোগ তুলেছে বাম-কংগ্রেস জোট৷ যদিও শেষমেশ মালদহ জেলার রতুয়া-২ ব্লকের শ্রীপুর জিএসএ হাই মাদ্রাসার নির্বাচনে বাম-কংগ্রেস জোট ৬ টি আসনের মধ্যে ৬ টি তেই জয় লাভ করেছে। খালি হাতে ফিরতে হয়েছে  (TMC) তৃণমূলকে।

রবিবার সকাল থেকে রতুয়া-২ ব্লকের জিএসএ হাইমাদ্রাসায় শান্তিপূর্ণ নির্বাচন চলছিল৷ কিন্তু হঠাৎ করেই উত্তপ্ত হয়ে ওঠে পরিস্থিতি৷ উপস্থিত হয় বিরাট পুলিশ বাহিনী। জোটের পোলিং এজেন্টকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে তৃণমূলের বিরুদ্ধে৷ একই অভিযোগ উঠেছে চাঁচলেও৷ সেখানেও গেটের সামনে জটলা বাঁধার অভিযোগ ওঠে তৃণমূল কর্মীদের বিরুদ্ধে। তবুও সেই সমস্ত অভিযোগের পরেও বিরাট জয় বাম-কংগ্রেসের।

গত বিধানসভা নির্বাচনে জোট হয়েই লড়াই করেছিল বাম-কংগ্রেস। কিন্তু খালি হাতে ফিরতে হয়েছে উভয় পক্ষকে৷ পরে বামেদের তরফে স্থির করা হয়, আগামী দিনে একলা চলো নীতি নিয়েই অগ্রসর হবেন তাঁরা। এতে অনেকটা ইতিবাচক ফল পেয়েছে বামেরা। জেলায় জেলায় তাদের জনসমর্থন বেড়েছে। তবে স্থানীয় নির্বাচনে জোট বেঁধেই চলছে লড়াই। সেখানেও জয় পেল বাম-কংগ্রেস জোট৷

সূত্রের খবর, পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে জেলায় জেলায় সম্মেলন করে ফের সংগঠনকে পুনরায় উদ্ধার করতে চাইছে বাম নেতৃত্ব। সেদিক থেকে অনেকটাই অচল হয়ে পড়েছে কংগ্রেস। একা অধীর চৌধুরীকে ময়দানে দেখা গেলেও, বহু কংগ্রেস নেতারা নিজেদের দূরে সরিয়ে রেখেছেন৷ পঞ্চায়েত নির্বাচনে কংগ্রেসকে সঙ্গে নিয়ে চলা ঠিক হবে বামেদের জন্য নতুন করে ফায়দা তুলবে না তো বিজেপি? প্রশ্ন রাজনৈতিক মহলে।

যদিও এই বিষয়ে এখন মুখে কুলুপ এঁটেছেন আলিমুদ্দিনের নেতারা৷ আপাতত বামফ্রন্টকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়াটাই তাঁদের প্রধান লক্ষ্য৷ প্রয়োজনে বৃহত্তর বাম ঐক্যবদ্ধ জোটের আহ্বান জানিয়ে বিরাট কর্মসূচির ডাক দিয়েছেন তারা৷