Sikkim: ছুটিতে গন্তব্য লাল পান্ডার দেশ সিকিম ? নতুন পারমিট নিয়ম জেনে নিন

135

সামনেই বড়সড় উৎসে অবকাশ। ছুটিতে কি আপনিও স্বর্গ দর্শন করতে প্রতিবেশি রাজ্য সিকিম (Sikkim) যাওয়ার পরিকল্পনা করছেন? যদি তেমন পরিকল্পনা থাকে তাহলে মনে রাখবেন সিকিমের সব জায়গা কিন্তু হুটহাট ঘোরা যায়না। যেহেতু আন্তর্জাতিক সীমান্তবর্তী সামরিক গুরুত্বপূর্ণ রাজ্য তাই কিছু বিধিনিষেধ থাকে। তবে এবার একটু স্বস্তি।

সুখী দেশ ‘সুখিম’ বা সিকিম হলো মূলত লাল পান্ডা আর অপূর্ব হিমালয় সৌন্দর্যের স্থান। সিকিম ঘুরতে যারা যাবেন তাদের জন্য এই রাজ্যের সরকার কিছু বিধিনিষেধ শিথিল করল। সিকিম পর্যটন দফতর সূত্রে খবর, বেশকিছু এলাকায় যেতে পারমিট (ছাড়পত্র) সংগ্রহের জন্য আর সময় নষ্ট করতে হবেনা।

স্বয়ম্ভু, চিন সীনান্তের নাথু লা, বাবা মন্দির, লাচুং, লাচেন, গুরুদোংমার হ্রদ দেখতে যাওয়ার জন্য পারমিট নিতে আর লম্বা লাইনে দাঁড়িয়ে থাকতে হবে না। এই পারমিট এবার থেকে অনলাইনেই মিলবে। গত ৭ সেপ্টেম্বর থেকেই রাজ্যে এই নতুন নিয়ম জারি হয়েছে। গ্যাংটক থেকে এসেছে এই সুখবর।

সিকিম পর্যটন দফতর জানাচ্ছে,পর্যটকরা ট্রাভেল এজেন্ট মারফত এই পারমিট করাতে পারবেন। সিকিম পুলিশ জানিয়েছে, স্থানীয়রা সার্ভিস প্লাস মোবাইল অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমেই এই পারমিট পেতে পারবেন। অন্যদিকে পর্যটকরা অনলাইনে আবেদন করলেই এই পারমিট পাবেন। এটি পেতে যা যা নথি লাগবে তা ফর্মে উল্লেখ থাকবে। মোবাইল থেকেই আপনি সেই ফর্ম ভর্তি করে নিন। তারপর নথি পরীক্ষা। সবশেষে আপনার কাছে চলে আসবে পারমিট হওয়ার সুখবরটি।

সিকিম দেখতে যাওয়ার জন্য পশ্চিমবঙ্গের পর্যটকদের বেশি ভিড়। যাত্রাপথে এনজেপি, শিলিগুড়ি হয়ে তিস্তার উপর বিখ্যাত সেবক সেতু পাশ কাটিয়ে আন্ত:রাজ্য সীমানা রাাংপোতে মিলবে এই সুবিধা। সিকিম সরকারের পর্যটন কাউন্টারে পাবেন সরাসরি সহায়তা।