Sunday, January 29, 2023

বছর শুরুতেই ৩৬ টি রাফালের শেষটি এসে পৌঁছবে ভারতে

- Advertisement -

নিউজ ডেস্ক: ২০১৬ সালে ফ্রান্সের ড্যাসল্ট কোম্পানি নির্মিত ৩৬ টি ফাইটার জেট রাফাল কিনেছিল ভারত সরকার। তাতে ব্যাপক দুর্নীতি হয়েছে বলে অভিযোগ তুলেছিল বিরোধীরা। ফ্রান্সে এই মামলার পুনর্তদন্ত শুরু হয়েছে ১৪ জুন। তদন্তের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে একজন স্বাধীন বিচারককে। এই বিতর্কেই মাঝেই ফ্রান্স থেকে রাফাল এসে পৌঁছাবে ভারতে।

আরও পড়ুন HAL-এর সঙ্গে ৭১৬ মিলিয়ন ডলারের চুক্তি করল GE Aviation

আগামী তিন মাসে ফ্রান্স থেকে প্রতি মাসে তিনটি করে রাফাল যুদ্ধবিমান পাবে আইএএফ (Indian Air Force)। ড্যাসল্ট কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি হওয়া ৩৬ টি রাফালের শেষটি এসে পৌঁছবে আগামী বছরের জানুয়ারী মাসে। প্রাথমিকভাবে হিন্দুস্তান অ্যারোনটিক্স লিমিটেড এর সঙ্গে ১২৬ টি ফাইটার বিমান কেনার কথা ছিল। ভারত সরকারের পক্ষে সে চুক্তি ভেঙে ড্যাসল্ট- সঙ্গে চুক্তি করা হয়। বিজেপি সরকার আসার পর নরেন্দ্র মোদি ভারত ফ্রান্সের মধ্যে একটি আন্ত সরকার চুক্তি করেন। ৩৬ টি রাফাল মিডিয়াম মাল্টিরোল কম্বাট এয়ারক্রাফট কেনা হয়।

- Advertisement -

চলতি বছরের জুলাইতেই হাসিমারায় এসে পৌঁছেছে রাফাল যুদ্ধবিমান। ভারতীয় বায়ুসেনার প্রধান এয়ার চিফ মার্শাল আরকেএস ভাদৌরিয়ার পৌরহিত্যে পুনর্গঠিত ১০১ স্কোয়াড্রনে সরকারিভাবে রাফাল যুদ্ধবিমানকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। বায়ুসেনার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে হাসিমারায় ভীষণ ভাবনাচিন্তা করেই রাফাল বিমানকে হাসিমারায় মোতায়েন করা হয়েছে। এর ফলে, পূর্বাঞ্চলে বায়ুসেনার শক্তি অনেকটাই বৃদ্ধি পাবে।

রাফালের জন্য ১০১ স্কোয়াড্রন ‘ফ্যালকন্স অফ ছাম্ব অ্যান্ড আখনুর’- কে পুনর্গঠন করেছে বায়ুসেনা। ১৯৪৯ সালে পালমে এই স্কোয়াড্রনের গঠন হয়েছিল। অতীতে এই স্কোয়াড্রনের আওতায় ছিল হার্ভার্ড, স্পিটফায়ার, ভ্যাম্পায়ার, এসইউ-৭ এবং মিগ-২১এম যুদ্ধবিমানগুলি। এই স্কোয়াড্রন ১৯৬৫ ও ১৯৭১ সালের যুদ্ধেও অংশগ্রহণ করেছিল। ২০১১ সালে এই স্কোয়াড্রন অবসর নেয়। এখন, রাফাল আসায় এই স্কোয়াড্রনকে পুনরুজ্জীবিত করা হয়েছে। বায়ুসেনা সুত্রে জানা গিয়েছে, শেষ পর্যায়ে এসে পৌঁছানো যুদ্ধবিমানগুলি হবে সবচেয়ে মারাত্মক রাফাল, যা বায়ুসেনাকে আরও শক্তিশালী করে তুলবে।