lok sabha election : দাবি পূরণের জন্য ভোটের ময়দানে নামছে কুড়মি সমাজ

  ২০১৯ সাল থেকে পশ্চিমের জেলাগুলোতে বেশ ভালো ফল করছে বিজেপি। কিন্তু এবার দুই ফুলের মাঝে ফুটতে চলেছে কুড়মি সমাজ। পুরুলিয়া, ঝাড়গ্রাম, বাঁকুড়া, বিষ্ণুপুরের মতো…

 

২০১৯ সাল থেকে পশ্চিমের জেলাগুলোতে বেশ ভালো ফল করছে বিজেপি। কিন্তু এবার দুই ফুলের মাঝে ফুটতে চলেছে কুড়মি সমাজ। পুরুলিয়া, ঝাড়গ্রাম, বাঁকুড়া, বিষ্ণুপুরের মতো আসনগুলিতে বড় জয় পেয়েছিল পদ্ম শিবির। তবে ২০২৪ সালে পশ্চিমের ৪টি আসনে বিজেপির সামনে কাঁটা হয়ে দাঁড়িয়ে এই কুড়মি সমাজ। বিগত দিনে একাধিকবার রেল এবং সড়ক অবরোধ করে আন্দোলন করতে দেখা গিয়েছে এই কুড়মিদের। এই আবহে গত পঞ্চায়েত ভোটে তাঁরা নির্দল প্রার্থী দাঁড় করিয়েছিলেন। আর এবার লোকসভা নির্বাচনে বাংলার চার আসনে প্রার্থী দেবে আদিবাসী কুড়মি সমাজ। এর মধ্যে থেকে পুরুলিয়া আসনের প্রার্থীর নাম ঘোষণা করা হয়ে গিয়েছে। ইতিমধ্যেই জঙ্গলমহলের আরও তিনটি আসনে আদিবাসী সংগঠন প্রার্থী দেবে বলে জানা গিয়েছে। ফলে চিন্তায় পড়েছে বিজেপির দলীয় কর্মীরা।

কুড়মি সমাজের দাবি, তাদের দাবি আদায়ের জন্য কোনো দলই বিশেষ ভূমিকা নেয় নি। দাবি আদায়ের জন্য এর আগে একাধিকবার পথে নেমেছেন কুড়মি সম্প্রদায়। রেল অবরোধ কর্মসূচি পালন করেছেন তাঁরা। এর জেরে দক্ষিণ-পূর্ব রেলের আদ্রা-চান্ডিল শাখায় ট্রেন চলাচল ব্যাহত হয়েছে বারংবার। দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে সাধারণ যাত্রীদের। তাতে লোকসান হয়েছে রেলের। এরপর কলকাতায় এসে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গেও দেখাও করেছেন তাঁরা। তবে তাতেও কোনো সমাধান সূত্র বেরিয়ে আসেনি। তৃণমূল এই ইস্যুকে লক্ষ্য করেই আঙুল তুলেছেন কেন্দ্রের দিকে। এই পরিস্থিতিতে সরাসরি কোনও রাজনৈতিক দলের ওপর ভরসা না রেখে নিজেদের ভোটের ময়দানে হাজির করিয়েছে কুড়মি সমাজ। রিপোর্ট অনুযায়ী, পুরুলিয়ায় কুড়মি প্রার্থী হবেন আদিবাসী কুড়মি সমাজের মূল মানতা অজিতপ্রসাদ মাহাতো। বুধবার পুরুলিয়ার বান্দোয়ানে আদিবাসী কুড়মি সমাজের রাজ্য কমিটির বৈঠক হয়েছিল। সেখানেই সর্বসম্মতিক্রমে পুরুলিয়া আসনের জন্য অজিতপ্রসাদের নাম বেছে নেওয়া হয়। জানা গিয়েছে, খুব শীঘ্রই তাঁরা ঝাড়গ্রাম, মেদিনীপুর ও বাঁকুড়ার প্রার্থীর নামও ঘোষণা করে দেবে। এই পরিস্থিতিতে যদি তারা বিজেপির ভোটে ভাগ বাসায় তাহলে সুবিধা হবে তৃণমূলের – অনেকেই এমন ধারণা করছে। এতে তৃণমূল কিছুটা স্বস্থিও অনুভব করবে।