NRC: অসমে ফরেনার্স ট্রাইব্যুনাল থেকে চাকরি ছাড়লেন কর্মীরা

229
assam foreigners tribunal quit from post

নিউজ ডেস্ক: কোটি কোটি টাকা খরচ করে সরকার গড়েছে বিদেশি চিহ্নিতকরণ ট্রাইব্যুনাল। এতে বিদেশি চিহ্নিত হলেই যেতে হবে চরম দুর্ভোগের ডিটেশন ক্যাম্পে। সেই ফরেনার্স ট্রাইব্যুনালের কর্মীদের এখন চাকরি ছাড়ার হিড়িক।

বিদেশি শনাক্তকরণ ট্রাইবুনালে নবনিযুক্ত  ১৩ জন সদস্য এবার চাকরি ছাড়লেন। অভিযোগ, ফরেনার্স ট্রাইব্যুনালের কর্মীদের জন্য  পর্যাপ্ত পরিকাঠামোর অভাব। এই কারণে ১৩ জন চাকরি ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হলেন। বিদেশি শনাক্তকরণের নামে অসম সরকার কোটি কোটি টাকা খরচ করার সময় ১৩ জন সদস্যের এভাবে সরে আসাটা তাৎপর্য্যের বিষয়।

জাতীয় নাগরিকপঞ্জী থেকে নাম ছিটকে পড়া ১৯ লক্ষ মানুষের নাগরিকত্ব প্রমান করতে নতুন করে খোলা হয়েছিল ফরেনার্স ট্রা়ইব্যুনাল। এখানে নিয়োগ করা হয় ২০০ জন সদস্যকে। যদিও আজ অব্দি শুরু করা হয়নি অতিরিক্ত ২০০ ট্রাইবুনালের কাজ ।

অধিকাংশ ট্রাইব্যুনালে পরিকাঠামোর সমস্যা ছিল। এমনকি বসার চেয়ার ,টেবিল পর্যন্ত নেই বলেই অভিযোগ। একটি টেবিলেই ৫-৬ জন সদস্য বসেন । সমস্যা সমাধান করতে গত সপ্তাহে রাজ্যের মুখ্য সচিবের সঙ্গে বৈঠক হয়। কিন্তু তারপরও সমাধান সূত্র বেরিয়ে আসেনি।

জাতীয় নাগরিকপঞ্জী ঘিরে বিতর্কিত পরিস্থিতি অসমে। লক্ষ লক্ষ অসমবাসীর নাম বাতিল হয়েছে। বাদ যাওয়াদের তালিকায় বেশিরভাগই হিন্দু সম্প্রদায়ের। এতে আরও বিপাকে পড়েছে বিজেপি।